সংগঠন বার্তা

শিক্ষা বাণিজ্য বন্ধ করতে হবে: লায়ন মোঃ গনি মিয়া বাবুল

বঙ্গবন্ধু গবেষণা পরিষদের কেন্দ্রীয় সভাপতি লায়ন মোঃ গনি মিয়া বাবুল বলেছেন, দেশে শিক্ষার নামে বাণিজ্য চলছে। অনতিবিলম্বে এই শিক্ষা বাণিজ্য বন্ধ করতে হবে। বর্তমানে বাংলাদেশে কোন শিক্ষানীতি কার্যকর নাই। বহুবিধ ধারায় শিক্ষা চলছে। শিক্ষাকে পণ্যে পরিণত করা হয়েছে। শিক্ষা ব্যবস্থায় বিশৃঙ্খলা বিরাজ করছে। শিক্ষার মান আশংকাজনকভাবে নি¤œগামী। বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে গবেষণা কার্যক্রম নাই বললেই চলছে। দেশের উন্নয়ন অগ্রগতি টেকসই করতে শিক্ষা ক্ষেত্রে শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে হবে। তিনি আরো বলেন, বঙ্গবন্ধু শাসনামলে গঠিত কুরদত-ই-খোদা শিক্ষা কমিশন এর রিপোর্ট অনুযায়ী একমুখী, কারিগরি ও অসাম্প্রদায়িক শিক্ষা ব্যবস্থা চালু করতে হবে। তিনি আরো বলেন, বর্তমান শিক্ষাক্রম মৌলবাদী ও সাম্প্রদায়িক ভাবধারায় আক্রান্ত। গণমুখী ও আত্মকর্মসংস্থামূলক শিক্ষানীতি প্রণয়ন ও বাস্তবায়ন করতে হবে। তাহলে সর্বস্তরে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও বঙ্গবন্ধুর আদর্শ বাস্তবায়ন সম্ভব হবে।
১৭ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বাংলাদেশ শিক্ষা পর্যবেক্ষক সোসাইটির উদ্যোগে মহান শিক্ষা দিবস উপলক্ষে ‘শিক্ষায় শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনার দাবিতে’ আয়োজিত মানববন্ধনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। বাংলাদেশ শিক্ষা পর্যবেক্ষক সোসাইটির চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ এম. শরিফুল ইসলাম এর সভাপতিত্বে আরো বক্তব্য রাখেন, ন্যাপ ভাসানীর চেয়ারম্যান মোস্তাক আহমেদ ভাসানী, জাতীয় স্বাধীনতা পার্টির চেয়ারম্যান মোঃ মিজানুর রহমান মিজু, বাংলাদেশ কনজারভেটিভ পার্টির চেয়ারম্যান আনিসুর রহমান দেশ, বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টির ভাইস চেয়ারম্যান স্বপন কুমার সাহা, বাংলাদেশ শিক্ষা পর্যবেক্ষক সোসাইটির পরিচালক ড. সৈয়দ আল-আমীন রোমান, আবদা বহুমুখী যুব সংঘের সভাপতি মোঃ সাজ্জাদুর রহমান, মোঃ মাহফুজুর রহমান, চলার সাথী সমাজ কল্যাণ সংস্থার চেয়ারম্যান মিসেস হালিমা খাতুন, ফাহিম আহমেদ তোহা, মোঃ রফিকুল ইসলাম মানিক, মির্জা সেলী প্রমুখ।
সভাপতির বক্তব্যে অধ্যক্ষ এম শরিফুল ইসলাম বলেন, মানবিক ও নিরাপদ বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠা করতে শিক্ষা ক্ষেত্রে শৃঙ্খলা নিশ্চিত করতে হবে। অবিলম্বে শিক্ষা বাণিজ্য বন্ধ করতে হবে। শিক্ষার মানোন্নয়ন ও শিক্ষা প্রচার-প্রসারে সর্বাধিক গুরুত্ব দিতে হবে।

Tags
Show More

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button