জলবায়ু পরিবর্তনে বৃক্ষরোপণে গুরুত্ব দিয়েছে সরকার: পলক

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক এমপি বলেছেন, জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবিলায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী তিনটি করে গাছ লাগানের কথা বলেছেন, বৃক্ষরোপণে গুরুত্ব দিয়েছেন। নিজ নিজ আঙিনায় বৃক্ষরোপণে তিনি সকলের প্রতি আহবান জানান।

বৈশ্বিক মহামারীর কারণে লক্ষ লক্ষ কোটি কোটি মানুষ বিধ্বস্ত, সেখানে মধ্য আয়ের দেশ হিসেবে আল্লাহর রহমতে সরকার সকল দুর্যোগ কাটিয়ে উঠতে সক্ষম হয়েছে। কৃষি ক্ষেত্রে সরকার ভর্তুকি দিয়েছে। বিভিন্ন ক্ষেত্রে প্রনোদনার ব্যবস্থা করেছে।

প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, বাংলাদেশের মাটি সোনার মাটি, তা বঙ্গবন্ধু উপলব্ধি করেছিলেন। বাংলাদেশের ১৭ কোটি মানুষের আহারের ব্যবস্থা করেছেন জননেত্রী শেখ হাসিনা সরকার। করোনার এ সময়ে কেউ না খেয়ে নাই। বিগত দিনে কৃষকদের সারের জন্য আন্দোলন করতে হয়েছে। এখন আর করতে হয় না। কৃষকরা ন্যায্য মূল্যে সার পাচ্ছে। ১০ টাকার ব্যাংক একাউন্ট খুলে দিয়েছেন।
বিনামূল্য প্রয়োজনীয় উপকরণ দিয়েছেন, শতভাগ বিদ্যুতের ব্যবস্থা করেছেন। চলনবিলের ৪৬০ কোটি টাকা ব্যয়ে সরকার কৃষি ও কৃষকদের কল্যাণে প্রকল্প অনুমোদন দিয়েছেন। এতে করে কৃষকরা বন্যার সময়ে সময়মত ঘরে ধান তুলতে পারে সরকার সে ব্যবস্থা করবে।

প্রতিমন্ত্রী প্রধান অতিথি হিসেবে নাটোরের সিংড়ায় শনিবার সকাল ১১টায় উপজেলা চত্বরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে সমগ্র সিংড়া উপজেলায় ১ লক্ষ চারা বিতরণের অংশ হিসেবে পৌর এলাকার বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক, স্বেচ্ছাসেবী প্রতিষ্ঠান, ধর্মীয় ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ২৫ হাজার চারা বিতরণ করেন।

উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এডভোকেট ওহিদুর রহমান শেখ এর সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সিংড়া পৌরসভার মেয়র মো. জান্নাতুল ফেরদৌস, সহকারী কমিশনার (ভূমি) রকিবুল হাসান, উপজেলা কৃষি অফিসার সাজ্জাদ হোসেন।

উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান শামিমা হক রোজি, চৌগ্রাম ইউপি চেয়ারম্যান জাহেদুল ইসলাম ভোলা, আওয়ামী লীগ নেতা শরফরাজ নেওয়াজ বাবু, উপজেলা আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক মাওলানা রুহুল আমিন, পৌর আওয়ামী লীগের সহসভাপতি মাহাবুব আলম বাবু, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি অধ্যক্ষ আব্দুল আওয়াল প্রমুখ। পরে প্রতিমন্ত্রী ৬০০ জন কৃষকদের মাঝে ৫৩৫ গ্রাম করে সবজি বীজ এবং ৬০ জন কৃষকদের মাঝে মাসকালাই বিতরণ করেন।